শুক্রবার, ১৮ জুন ২০২১, ০৫:৩৪ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
শিরোনাম :
করোণা মোকাবেলায় সচেতন করছে জাসদ মনোনীত চেয়ারম্যান প্রার্থী প্লাবন। কুমারখালীতে কঠোর বিধিনিষেধ বাড়িয়েছে করোনা, নাগরিক কমিটির উদ্বেগ আক্রান্ত-৮৭ কুমারখালীতে একাধিক মামলার আসামীকে গায়েবী মামলায় ফাঁসানোর অভিযোগ পাটগ্রামে অসহায় আব্বাস আলীর চোখের চিকিৎসা খরচ যোগাতে পাশে দাঁড়ালেন মানবিক বাংলাদেশ সোসাইটি পাটগ্রামে পরকীয়া সম্পর্কে জড়িয়ে প্রতিবেশী শ্বশুর- বউমা উধাও! মিরপুর পৌর এলাকা ৭ দিনের সর্বাত্মক লকডাউন খোকসায় যুদ্ধকালীন সময়ের পরিত্যক্ত গ্রেনেড উদ্ধার হয়েছে। সাধারণ জনগণকে বোকা বানিয়ে অর্থনৈতীক শোষণ করা হচ্ছে না তোঃপ্লাবন। মেহেরপুরে High flow oxygen canal উপহার দেওয়াই প্লাবনের শুভেচ্ছা পরিবর্তনের মেহেরপুরের এ্যাডমিন সাইদুর রহমান এর সাথে সহমত পোষণ করলেনঃপ্লাবন।
ঘোষনা :
আন্দোলনের ডাক ডটকমে আপনাকে স্বাগতম , সর্বশেষ সংবাদ জানতে  আন্দোলনের ডাক ডটকমের সাথে থাকুন । আন্দোলনের ডাক ডটকমের জন্য  সকল জেলা ও উপজেলা প্রতিনিধি নিয়োগ দেওয়া হবে।  আগ্রহী প্রার্থীগণ জীবন বৃত্তান্ত, পাসপোর্ট সাইজের ১কপি ছবি ও শিক্ষাগত যোগ্যতার সনদপত্রসহ ই-মেইল পাঠাতে পারেন। শিক্ষাগত যোগ্যতাঃ যে কোন বিশ্ববিদ্যালয় হতে স্নাতক পাস এবং বিশ্ববিদ্যালয় ও কলেজে অধ্যয়নরত ছাত্র/ছাত্রীগণও আবেদন করতে পারবেন।   আবেদন প্রেরণের প্রক্রিয়াঃ  ই-মেইল: , প্রয়োজনে মোবাইলঃ  




কুষ্টিয়ার ইতিহাস বইটি লিখে আলোড়ন সৃষ্টি করেছেন ড. সারিয়া সুলতানা

এস,এম জামালঃ / ১০৪ বার নিউজটি পড়া হয়েছে
আপডেট টাইম : শুক্রবার, ১৮ জুন ২০২১, ০৫:৩৪ অপরাহ্ন




কুষ্টিয়ার ইতিহাস বইটি লিখে আলোড়ন সৃষ্টি করেছেন ড. সারিয়া সুলতানা
এসএম, জামাল, কুষ্টিয়া অফিসঃ সাংস্কৃতিক রাজধানী কুষ্টিয়া শিল্প সাহিত্যের প্রাচুর্যে ভরপুর। কুষ্টিয়া বাংলাদেশের একটি গুরুত্বপূর্ণ জেলা। শিল্প-সাহিত্য-সংস্কৃতি-ইতিহাস-ঐতিহ্য-ধর্ম, সকল দিক দিয়েই এ জেলায় রয়েছে গৌরবময় অতীত। অবিভক্ত বাংলার নদীয়া জেলা ছিল বঙ্গ সংস্কৃতির প্রাণকেন্দ্র। আর এই কুষ্টিয়াতে কুষ্টিয়ার ইতিহাস বইটি লিখে ইতিমধ্যেই আলোড়ন সৃষ্টি করেছেন।

ড. সারিয়া সুলতানা। তিনি লেখক, গবেষক ও প্রাবন্ধিক। গবেষণা করেন কুষ্টিয়ার ইতিহাস নিয়ে। অনার্স ও মাষ্টার্স সম্পন্ন করেছেন ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের লোকপ্রশাসন বিভাগ হতে। পিএইচ.ডি সম্পন্ন করেছেন জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের সরকার ও রাজনীতি বিভাগ থেকে। গবেষণার বিষয় ‘Role of Link Model on Sustainable Rural Development in Bangladesh’। যখন লোকপ্রশাসন বিভাগ হতে স্নাতকে প্রথম শ্রেণিতে প্রথম স্থান অধিকার করেন তখন তার স্বপ্ন ছিল সরকারের একজন দক্ষ প্রশাসক হবার। কিন্তু এক অধরা স্বপ্ন তাকে আচ্ছাদিত করেছিল লেখালেখির জগৎ এ পদাপর্ণের জন্য। তার একমাত্র কন্যা মেহজাবীন মুমতাহিনা পঞ্চম শ্রেণিতে পড়ালেখা করছে ও তার জীবনসঙ্গী ড. মুহম্মদ এমদাদ হাসনায়েন একজন লেখক-গবেষক-প্রাবন্ধিক। সফল দম্পতি হিসেবে দুজনের মধ্যে বেশ বোঝাপড়া তাদের মধ্যে। সফল দাম্পত্য দু’জনে কুষ্টিয়া জেলার ইতিহাস নিয়ে দীর্ঘ ১৬ বছরের অধিক সময় বিভিন্ন উপজেলায় সরেজমিন পরিদর্শন করেছেন। জানা অজানা বিভিন্ন গুণী মানুষের গুণকীর্তন মানুষের কাছে শুনেছেন, এবং তুলে ধরেছেন সেসব না জানা কথাগুলো। তারই এক বাস্তব প্রতিফলন ‘কুষ্টিয়ার ইতিহাস’ গ্রন্থে তুলে ধরেছেন। ২০১৮ সালে প্রথম ‘কুষ্টিয়ার ইতিহাস’ প্রকাশ করতে পেরেছেন। ২০২০ সালে এই গ্রন্থের ২য় সংস্করণ এসেছে বৃহৎ কলেবরে ৮৩২ পৃষ্ঠার তাদের প্রকাশনী ‘কণ্ঠধ্বনি’ হতে এবং দ্বিতীয় গ্রন্থ ‘ধর্মীয় ইতিহাস স্থাপত্যে কুষ্টিয়া’, দুটো গ্রন্থই গবেষণামূলক। ‘দুই বাঙলার নান্দনিক কবিতা’ গ্রন্থটি ১০১ কবি ৩৬৫ কবিতা সম্বলিত সম্পাদিত গ্রন্থ, এটিও গবেষণামূলক। তাদের স্বপ্ন কুষ্টিয়াকে বিভিন্ন চোখে বিশ্ববাসীর সামনে তুলে ধরা। সে লক্ষ্যে কাজ করে চলেছেন তারা। গর্ববোধ করেন এই কুষ্টিয়া জেলাকে নিয়ে, কুষ্টিয়ার মানুষকে নিয়ে। যারা ইতিহাস লেখায় বরাবর অনুপ্রেরণা যুগিয়ে চলেছেন। তারা দুজন কুষ্টিয়াবাসীকে নান্দনিক শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানিয়েছেন।

ড. সারিয়া সুলতানা বলেন, পিএইচডি ডিগ্রি ধারীরা নিজ জেলা নিয়ে ভাবে না। অথচ আমরা দুজনেই পিএইচডি ডিগ্রি নিয়েও কুষ্টিয়ার ইতিহাস নিয়ে কাজ করতে গিয়ে আটকে গিয়েছি।
আমরা যদি ঢাকায় অন্য কোন চাকরি করতাম তবুও অনেক ভালো কিছু করতে পারতাম। কিন্তু আমরা কুষ্টিয়াকে নিয়ে অনেক ভাবি বলেই আমাদের কুষ্টিয়া ছেড়ে যাওয়া সম্ভব হয়নি। কুষ্টিয়ার মানুষের ভালোবাসায় আমাদের পায়ের শিকলে আবদ্ধ রয়েছে তাই হয়তোবা আমরা দু’জন কুষ্টিয়া ছেড়ে যেতে পারিনা বলেও উল্লেখ করেন তিনি।





আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর ....




Archives

এক ক্লিকে বিভাগের খবর