শুক্রবার, ১৮ জুন ২০২১, ০৮:২৩ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
শিরোনাম :
করোণা মোকাবেলায় সচেতন করছে জাসদ মনোনীত চেয়ারম্যান প্রার্থী প্লাবন। কুমারখালীতে কঠোর বিধিনিষেধ বাড়িয়েছে করোনা, নাগরিক কমিটির উদ্বেগ আক্রান্ত-৮৭ কুমারখালীতে একাধিক মামলার আসামীকে গায়েবী মামলায় ফাঁসানোর অভিযোগ পাটগ্রামে অসহায় আব্বাস আলীর চোখের চিকিৎসা খরচ যোগাতে পাশে দাঁড়ালেন মানবিক বাংলাদেশ সোসাইটি পাটগ্রামে পরকীয়া সম্পর্কে জড়িয়ে প্রতিবেশী শ্বশুর- বউমা উধাও! মিরপুর পৌর এলাকা ৭ দিনের সর্বাত্মক লকডাউন খোকসায় যুদ্ধকালীন সময়ের পরিত্যক্ত গ্রেনেড উদ্ধার হয়েছে। সাধারণ জনগণকে বোকা বানিয়ে অর্থনৈতীক শোষণ করা হচ্ছে না তোঃপ্লাবন। মেহেরপুরে High flow oxygen canal উপহার দেওয়াই প্লাবনের শুভেচ্ছা পরিবর্তনের মেহেরপুরের এ্যাডমিন সাইদুর রহমান এর সাথে সহমত পোষণ করলেনঃপ্লাবন।
ঘোষনা :
আন্দোলনের ডাক ডটকমে আপনাকে স্বাগতম , সর্বশেষ সংবাদ জানতে  আন্দোলনের ডাক ডটকমের সাথে থাকুন । আন্দোলনের ডাক ডটকমের জন্য  সকল জেলা ও উপজেলা প্রতিনিধি নিয়োগ দেওয়া হবে।  আগ্রহী প্রার্থীগণ জীবন বৃত্তান্ত, পাসপোর্ট সাইজের ১কপি ছবি ও শিক্ষাগত যোগ্যতার সনদপত্রসহ ই-মেইল পাঠাতে পারেন। শিক্ষাগত যোগ্যতাঃ যে কোন বিশ্ববিদ্যালয় হতে স্নাতক পাস এবং বিশ্ববিদ্যালয় ও কলেজে অধ্যয়নরত ছাত্র/ছাত্রীগণও আবেদন করতে পারবেন।   আবেদন প্রেরণের প্রক্রিয়াঃ  ই-মেইল: , প্রয়োজনে মোবাইলঃ  




বর্তমানে পৌরসভা থেকে সেবা নয়, চরম দুর্ভোগ পাচ্ছে। জলাবদ্ধতায় নাকাল ভেড়ামারা পৌরবাসী…. টুটুল।

বাবলু মোস্তাফিজ, সম্পাদকঃ আন্দোলনের ডাক ডট কম / ১৯২ বার নিউজটি পড়া হয়েছে
আপডেট টাইম : শুক্রবার, ১৮ জুন ২০২১, ০৮:২৩ পূর্বাহ্ন




[ঐ উড়ে নতুনের কেতন]
(একান্ত সাক্ষাৎকার)

বর্তমানে পৌরসভা থেকে সেবা নয়, চরম দুর্ভোগ পাচ্ছে। জলাবদ্ধতায় নাকাল ভেড়ামারা পৌরবাসী…..
..আনোয়ারুল কবির টুটুল

|বাবলু মোস্তাফিজ|  

🛡 আনোয়ারুল কবির টুটুল আসন্ন ভেড়ামারা পৌরসভা নির্বাচনে প্রিয় দল জাসদ’র মেয়র প্রার্থী হিসাবে মনোনয়ন পেয়েছেন।

দল বা ব্যাক্তি দুই জায়গায় তিনি সমান জনপ্রিয়।
দলের অভিভাবকদের কাছে সে যেমন সমাজ বদলের আগামীর সংগ্রামী সূর্য সন্তান।
তেমনি পৌরসভার সচেতন জনসাধারণের কাছে তিনি আস্থা ও ব্যক্তিত্ববান এক তরুন তুর্কী হিসাবে গ্রহণযোগ্যতা অর্জন করে চলেছেন।

🛡ভেড়ামারার আগামীর অগ্রগামী তরুণ তুর্কী, যার মধ্যে রয়েছে সকল অসংগতি, দুর্নীতি, মাস্তানী, দমনের সাহসী নেতৃত্ব গুন।

সাধারণ জনগণের ন্যায্য অধিকার আদায়ে সে যেন এক নবীন যোদ্ধা।

তার রয়েছে সকলকে নিয়ে সামনে থেকে নেতৃত্ব দিয়ে একটি মনোরম বাসযোগ্য পৌরসভা গঠনের একটি পরিকল্পিত ভাবনা।

🛡সৃষ্টি ও সৌন্দর্য নিয়ে তার রয়েছে সবার চেয়ে আলাদা চিন্তাশীল ভাবনার জগৎ।
তার চিন্তা ও ভাবনা নিয়ে থাকবে একটি চমকপ্রদ প্রতিবেদন।
আজ থাক, কয়েক দিনের মধ্যে তা প্রকাশিত হবে।

🛡মেধাবী, লড়াকু যোদ্ধা, অন্যায়, অবিচার, শোষণ বঞ্চনা,অসহায় গণমানুষের ন্যায্য দাবী আদায়ে সে ছিলো, আছে, থাকবে।

🛡সমাজের সব শ্রেনীপেশার মানুষের কাছে সে একজন ব্যক্তিত্ববান ও আস্থাভাজন।
এগুলোও তার নামের পাশে আজ নাই-বা বসালাম।

🛡জাসদের লড়াই সংগ্রামের পরিক্ষিত, সামনের সারির এক আপোষহীন লড়াকু ও সাম্যের সমাজ গড়ার কর্মী, যুবনেতা “আনোয়ারুল কবির টুটুল”

না-হ এই পদবীটাও আজ অবশিষ্ট রাখলাম।

🛡টুটুল একজন সফল ব্যবসায়ী। এক কথায়, ব্যবসায়ী হিসাবে টুটুল যুব সামাজের পথ প্রদর্শক বা আইকন ব্যবসায়ী সমাজের কাছে অহংকার।
তার এই অর্জনের কথা যদিও প্রসংশনীয় তারপরও এ বিষয়ে আজকের পঙক্তি মালাই নাই বা সাজালাম, থাক না আজ তুলে রাখলাম।

🛡সে সত্যিকারের একজন ক্রীড়া প্রেমীক, তরুনদের জন্য বিগতদিনে খেলাধুলাসহ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের মহা উৎসবের সূচনা করেছেন যা তরুণ সমাজসহ সকলের কাছে খুবই প্রসংশনীয় হয়েছে।
না আমি এটাও আজ উল্লেখ করার প্রয়োজন বোধ করছি না।

🛡যা হোক- যুবনেতা মেধাবী রাজনৈতিক কর্মী আনোয়ারুল কবির টুটুল ভেড়ামারা উপজেলা যুবজোটের সহ সভাপতি।
এ.কে কনস্ট্রাকশন’র ব্যবস্থাপনা পরিচালক। বিশিষ্ট ব্যবসায়ী ও ক্রীড়া প্রেমীক এ কথা
বলার অবকাশ রাখেনা, কারণ সাধারণ মানুষ এই সম্বন্ধে যথেষ্ট অবগত।

🛡সংকট কাল অর্থাৎ করোনা কালে টুটুল সার্বিক ভাবে অসহায়দের পাশে ছিলেন। নিয়েছিলেন গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা।
এ কথা লিখবো না কারন এটা তার দায়িত্ব ও কর্তব্যের মধ্যে পড়ে। কারন সে মানুষের সেবক।

তাই এটা নিয়ে আলোচনা করা এখন অযৌক্তিক। তাই নয়-কি?

🛡পৌরবাসীর জন্য নিরাপদ, সুবিধা সম্বলিত, পরিকল্পিত আধুনিক শহর উপহার দিতে চান।
এমন যুগান্তকারী সু-ভাবনা তার।
এ কথার বিস্তারিত উল্লেখ করার দরকার কি রয়েছে? হয়তবা রয়েছে।

🛡”আনোয়ারুল কবির টুটুল” ভেড়ামারা পৌরবাসী কে আস্থা ও বিশ্বাসের একটি পৌরভবন উপহার দিতে চায়।

তার কাছের বন্ধু ও শুভাকাঙ্খী ও পৌরবাসী এ কথাটিও অল্প সল্প জেনে গেছেন ইতিমধ্যে। তাই এই বিষয়ে বিশদ আলোচনায় নিয়ে আসা ঠিক হবে কি?

তবে এ বিষয়ে আজ যৎসামান্য আলোচনা করা যেতেই পারে।

🛡আমি আর কি লিখবো ভেবে না পেয়ে অবশেষে… আসন্ন ভেড়ামারা পৌরসভা নির্বাচনে মেয়র প্রার্থী আনোয়ারুল কবির টুটুলের মুখোমুখি হয়েছিলাম।

📎আসুন পৌরবাসীর উদ্দেশ্য যে বার্তা সে দিয়েছে, তাই তুলে ধরলাম।

আনোয়ারুল কবির টুটুল বলেন,
শহরে জলাবদ্ধতা, দুরগন্ধ, নোংরা-আবর্জনা, অপরিকল্পিত নগরায়ণ, জঞ্জাল,ধুলাবালী ও ভাগারের শহর ভেড়ামারা পৌরসভাকে নির্বাসনে পাঠাতে চায়।

এই পৌরবাসী এবার বলিষ্ঠ ভুমিকা এবং সুচিন্তিত সিদ্ধান্ত নিয়ে রেখেছে। আমি তাদের সাহায্য কারী হতে চায়।
বর্তমান অবস্থা থেকে মুক্তি পেতে নতুন আধুনিক সুবিধা সম্বলিত একটি পৌরসভা গড়ে তুলতে চাই। আর এর জন্য চাই ব্যাক্তির পরিবর্তন।

তিনি বলেন, যেখানে সামান্য বৃষ্টি হলে রাস্তা পরিনত হয় নদীতে। বাড়ি ঘরে নোংরা পানি ঢুকে সয়লাব হয়ে বসবাস অযোগ্য হয়ে পড়ে।
যেখানে বাথরুমের পানি ড্রেনে না পড়ে উল্টো ড্রেনের পানি বাথরুমে, বাড়িতে ঢুকে পড়ে। যেখানে ডাষ্টবিন না থাকায় গোটা পৌরসভা জুড়ে আবর্জনার ভাগার তৈরি হয়েছে।
দুর্গন্ধ বাতাসে ছড়িয়ে পড়ে অসাস্থ্যকর পরিবেশ বিরাজ করছে।
মশার উপদ্রবে মানুষ এখন দিশেহারা। পানি সরবরাহের ব্যবস্থা এখন নেই বললেই চলে। বর্তমানে পৌরসভা থেকে সেবা নয়, চরম দুর্ভোগ পাচ্ছে ভেড়ামারা পৌরবাসী।

আমার শুধু আসন্ন নির্বাচন নিয়ে ভাবনা নয়, নির্বাচনে যদি অংগ্রহন করি ফলাফল যাই হোক না কেন, আমি নাগরিক সুবিধা সম্বলিত একটি পৌরসভা গঠনে জনতা কে সাথে নিয়ে চলমান থাকবে আমার এ আন্দোলন বা প্রচেষ্টা।

আমি একটি দীর্ঘময়াদি পরিকল্পনা গ্রহন করেছি। যতদিন এটা বাস্তবায়ন না হবে আমার সংগ্রামী প্রচেষ্টা অব্যহত থাকবে।

এছাড়াও
ন্যায় বিচার নিশ্চিত করা সহ ক্ষমতাহীনদের পাশে দাড়িয়ে ক্ষমতাবানদের দখলবাজী, মাস্তানি, হুংকার প্রতিরোধে জনতার ঢাল হয়ে, জনতাকে সাথে নিয়ে অসহায়দের পাশে থাকবো এবং সরকারি সাহায্য সহযোগিতা জনগনের মাঝে সুষ্ঠ বন্টনে ভুমিকা রাখতে আমি এক নতুন নজির স্থাপন করতে চাই।

চলবে……





আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর ....




Archives

এক ক্লিকে বিভাগের খবর